The Bangladesh Today | Uniting people everyday

ঢাকা শনিবার, ০১ অক্টোবর ২০২২

  • ‘দেশে আর তত্ত্বাবধায়ক সরকারের অধীনে নির্বাচন হবে না’ প্রধানমন্ত্রীর জন্যই সারাদেশে শান্তির সুবাতাস বইছে: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী ন্যাটোতে যোগ দেওয়ার ‘ত্বরিৎ’ আবেদন করেছে ইউক্রেন বিএনপির বক্তব্য ও রডের মাথায় জাতীয় পতাকা একসূত্রে গাঁথা: তথ্যমন্ত্রী লঘুচাপ সৃষ্টির পূর্বাভাস, বাড়তে পারে বৃষ্টি পুতিনকে ‘রক্তপিপাসু’ বললেন ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট পাবনায় কুড়াল দিয়ে কুপিয়ে যুবককে হত্যা দুর্গাপূজার সাথে মিশে আছে চিরায়ত বাংলার ঐতিহ্য ও সংস্কৃতি: রাষ্ট্রপতি মোল্লাহাটে শিশু কিশোর কিশোরী কার্যালয়ের যুগপূর্তি অনুষ্ঠিত বিএনপির মিথ্যাচারে দেশে অস্থিতিশীল পরিস্থিতি তৈরি হচ্ছে: কৃষিমন্ত্রী
  • ‘বোল্ড’ দৃশ্যে পূজা চেরী, যা বললেন নির্মাতা

    ‘বোল্ড’ দৃশ্যে পূজা চেরী, যা বললেন নির্মাতা
    ছবি: সংগৃহীত

    খ্যাতিমান লেখক আনিসুল হকের উপন্যাস অবলম্বনে নির্মিত সিনেমা ‘হৃদিতা’। পরিচালনা করেছেন ইস্পাহানি আরিফ জাহান। সরকারি অনুদানপ্রাপ্ত সিনেমাটির মুখ্য ভূমিকায় আছেন পূজা চেরী ও এবিএম সুমন। মঙ্গলবার (২০ সেপ্টেম্বর) উন্মুক্ত করা হয়েছে এর ট্রেলার।

    এরপরই ট্রেলারের একটি দৃশ্য নিয়ে আলোচনা-সমালোচনা ওঠে। যেখানে দেখা যায়, বসে আছেন পূজা, আর তার ছবি আঁকছেন এবিএম সুমন। আঁকা ছবিতে পূজার পোশাকহীন অবয়ব স্পষ্ট। যেটি দেখে ফেসবুকে উঠেছে সমালোচনার ঢেউ। অভিযোগ উঠেছে, ‘টাইটানিক’ ছবির জ্যাক ও রোজের আলোচিত দৃশ্যটাই নকল করা হয়েছে এই সিনেমায়! তবে এসব সমালোচনা শুরু হতেই দৃশ্যটি ট্রেলার থেকে সরিয়ে ফেলা হয়েছে।

    বিষয়টি নিয়ে যোগাযোগ করা হয় ‘হৃদিতা’র নির্মাতা ইস্পাহানির সঙ্গে। তার সরল স্বীকারোক্তি, বিতর্ক এড়াতেই দৃশ্যটি সরিয়ে ফেলেছেন। তার ভাষ্য, ‘মাত্র দুই ফ্রেমের একটি শট। এখন এটা যদি মানুষের খারাপ লাগে, তাহলে দিলাম না! এটা তো বড় বিষয় না।’

    সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ওঠা সমালোচনা প্রসঙ্গে এই নির্মাতার বক্তব্য, ‘যারা নেগেটিভ কথাবার্তা বলে, তারা কি ওই পর্যায়ের কেউ? একটা মানুষ (এবিএম সুমন) আর্ট করতে পারে, তার আঁকার বিষয়বস্তু কত কিছুই তো হতে পারে। আসলে কিছু গ্রুপ আছে, যাদেরকে সিনেমার প্রচারের জন্য টাকা দিতে হয়। এখন আমি তো এদের কারও দ্বারস্থ হইনি। নিজেরটা নিজেই প্রচার করবো। সিনেমা থেকে তো পয়সা আসে না; তাহলে খরচ কোত্থেকে করবো?’

    টাকার বিনিময়ে প্রচার করে দেওয়ার কোনও প্রস্তাব পেয়েছেন কিনা জানতে চাইলে ইস্পাহানি বলেন, ‘এগুলা আমরা আগে থেকেই জানি। আমরা তো সিনেমার অনেকদিন যাবত আছি। এটা নিয়ে সেভাবে কিছু বলতেও চাই না। ফেসবুকে অনেকেই অনেক কথা বলেন, আমি উত্তরও দেই না। একটা মানুষের সঙ্গে সুসম্পর্ক থাকাটাই তো ভালো, সম্পর্ক খারাপ করে কোনও লাভ আছে?’

    বেশ কিছুদিন আগেই ‘হৃদিতা’ সিনেমাটি বিনাকর্তনে ছাড়পত্র পেয়েছে বলে জানালেন ইস্পাহানি। তার মতে, যদি আপত্তিকর কিছু থাকতো, তাহলে তো ছাড়পত্র পেতো না। তিনি বলেন, ‘সিনেমাটা তো হলে চলবে। একটা লোক আর্ট করছে, এতে খারাপ কী আছে বুঝতে পারলাম না।’

    ‘হৃদিতা’ নির্মাণের সার্বিক অভিজ্ঞতা নিয়ে ইস্পাহানির মন্তব্য, ‘আমরা তো একসময় বাণিজ্যিক, অ্যাকশন ধাঁচের সিনেমা তৈরি করেছি। এরপর সিনেমার ব্যবসায় মন্দা চলে আসলো। মানুষ অকাতরে গালিগালাজ করতো; হিন্দি, তামিলের নকল সিনেমা বানায়; এসব বলে কটূক্তি করতো। এটা সত্য যে, আমরা তখন নকল করতাম, কোয়ালিটি ভালো ছিলো না। এর সঙ্গে মন্দাবস্থার কারণে অনেকদিন সিনেমা বানাইনি। যখন অনুদানের একটি সিনেমা বানানোর সুযোগ পেলাম, আমরা ভালো কিছুর চেষ্টা করেছি। একটা উপন্যাস থেকে সিনেমা তৈরি করেছি। সবমিলিয়ে কাজটি করে নিজের মন থেকেই তৃপ্তি পেয়েছি।’

    আগামী ৭ অক্টোবর প্রেক্ষাগৃহে মুক্তি পাচ্ছে ‘হৃদিতা’। এ উপলক্ষে ২৬ সেপ্টেম্বর প্রকাশ করা হবে সিনেমাটির একটি গান। সেদিন আনুষ্ঠানিকভাবে এই সিনেমা নিয়ে কথা বলবেন নির্মাতা-শিল্পীরা।


    সর্বশেষ